‘নিরন্ন ভারতবাসী’ কথাটার অর্থ আমরা গভীরে ভেবে দেখেছি?

আজ একটা কথা অনুভব করে বড় লজ্জিত বোধ করছি।
আমরা সবাই কথায় কথায় বলে থাকি ‘নিরন্ন ভারতবাসী’।
কিন্তু কথাটার অর্থ যে গভীর তা ভেবে দেখেছি কি?
‘নিরন্ন’ কথার মানে যার অন্ন জোটেনি।
আবার ‘অন্ন’ কথাটারও দুটো অর্থ হয়।
অন্ন কথাটি খাদ্যদ্রব্য বোঝাতে ব্যবহৃত হয়।
আবার অন্ন বলতে শুধুমাত্র চাল বা ভাতকেও বোঝান হয়।
অথচ লজ্জাজনক হলেও এটাই সত্য যে জনগণের একটা বড় অংশই দৈনিক ২০ টাকার কম রোজগার করে।
এদের কাছে ভাত খাওয়া তো দূরের কথা, তার স্বপ্ন দেখাটাও চূড়ান্ত বিলাসিতা।
“স্বাধীনতা”র এত বছর পরেও মূলনিবাসী জনগণকে অর্ধাহারে, অনাহারে কাটাতে হয়।
কোনদিন একটা মেঠোইঁদুর পেয়ে গেলেই এরা সৌভাগ্যবান মনে করে। গম কোথায় পাবে?
একটা বিরাট অংশের বাজরা বা রাগিও জোটেনা।
‘পেঠে’ কাকে বলে জানেন?
‘পেঠে’ বা কাঠপোকার লার্ভা পাতার আগুনে ঝলসে দিন গুজরান হয়। তাও না জুটলে পিঁপড়ের ডিম তো আছেই।
হাই প্রোটিন তো খাচ্ছে তাই না!
বাবুরা সংসদে বসে কালোটাকার বিরুদ্ধে ভাষণ দিয়েই কর্পোরেট ট্যাক্স মকুবের ফরমান জারি করেন।
নিয়মিত বিদেশসফর করে রাজামশাই ‘উন্নয়নের’ ফর্মুলা বানান।
এরা কিন্তু সেই তিমিরেই পড়ে থাকেন।
তাদের ক্ষুধার সামনে আমার শহুরে শৌখিন অস্তিত্বই সঙ্কটে মনে হচ্ছে।

If you found this article interesting, please copy the code below to your website.
x 
Share

One Response to “‘নিরন্ন ভারতবাসী’ কথাটার অর্থ আমরা গভীরে ভেবে দেখেছি?”

  1. Madhusudan Mahato 22 January 2017 at 4:46 PM #

    Good post


Leave a Reply