নাস্তিকরা কী সমাজ বিচ্ছিন্ন জীব ?

অনেকেই মনে করেন নাস্তিকরা সমাজবিচ্ছিন্ন জীব। তারা ধার্মিকদের নিচু নজরে দেখে এবং তাই তাদের ধর্মীয় উৎসবে সামিল হননা। আমি জানাতে চাই যে, এই ধারণা সর্বৈব ভুল যে আমরা ধার্মিকদের নিচু নজরে দেখি। আমরা তাদের ঘৃণা করিনা, কারণ বুঝি যে তারা ভুল ধারণার শিকার। তারাও এই সমাজেরই অংশ, তাই তাদের ভুল না ভাঙালে সমাজ এগোবেনা। এজন্য আমরা তাগা-তাবিজ, পূজা-রোজায় বিশ্বাসী বন্ধুদের সাথে সরল ভাবে মিশে সহজ ভাষায় তাদের ভুল ধরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করি। আমরা সবাই একদিন এভাবেই নাস্তিক হয়েছি। আমাদের লক্ষ্য হল আমাদের সাথে মিশে একদিন তারা নিজেরাই বুঝবে তাদের শোষণ বঞ্চনার কারণ কোন ইশ্বর-আল্লা নয়। কিছু মানুষের অপরিসীম লোভই তাদের দারিদ্রের কারণ। এটা বুঝলে তারা নিজেরাই তাগা-তাবিজ খুলে ফেলবে। কিন্তু, আমরা যদি "মোরা তোমাদেরই লোক" প্র

''ধর্মনিরপেক্ষতা ও শিক্ষক সমাজ:"

'ধর্মনিরপেক্ষতা' বা Secularism শব্দটার উৎপত্তি ইউরোপে। উনবিংশ শতাব্দীর নবজাগরণের এক মহত্তম ধারণা এই Secularism যার আভিধানিক অর্থ An ism does not related with religion and non entity to any supernatural existence। অর্থাৎ ধর্মের সঙ্গে কোনরূপ সম্পর্কিত নয় এমন একটি মতবাদ হল ধর্মনিরপেক্ষতা। লিখেছেন-পরেশ দেবনাথ [ বহুদিন আগে আমার এই লেখাটি ছাপার অক্ষরে আত্মপ্রকাশ করেছিল মুর্শিদাবাদের 'বিজ্ঞান ভাবনা' পত্রিকায়। তার আগে এক শিক্ষক বন্ধুর অনুরোধে লেখাটি জমা দিই শিক্ষকদের দ্বারা পরিচালিত একটি পত্রিকায়।কিন্তু সেই শিক্ষক-সম্পাদক লেখাটি পড়ে এতই ক্রুদ্ধ হন যে তারপর থেকে তিনি আমার সঙ্গে কথা বলাই বন্ধ করে দেন।লেখাটা ছাপেন নি সেটা বলাই বাহুল্য। আমার ফেসবুকের কিছু বন্ধু লেখাটা পোস্ট করতে বলেছিলেন।কিন্তু এত বড় লে

Be Rational

SRAI

The Science and Rationalists' Association of India (Bengali: ভারতীয় বিজ্ঞান ও যুক্তিবাদী সমিতি, Bharatiya Bigyan O Yuktibadi Samiti) is a rationalist group based in Kolkata, India.

Reg.-S/63498 of 1989-90

Get Monthly Updates

© 2020 All rights reserve by www.srai.org